শনিবার, ১৭ এপ্রিল ২০২১, ০৭:৩২ অপরাহ্ন

শিরোনাম:

বাংলাদেশী সিনেমার সালতামামি আশির দশক

ডেস্ক নিউজ॥

১৯৮১ সালে বাংলাদেশে মোট ৩৯ (উনচল্লিশ) টি বাংলা চলচ্চিত্র মুক্তি পায়। এর ভেতর ১০টি সিনেমা সুপারহিট ব্যবসা করে। এই সেরা দশ ছবির নাম: ১. দেওয়ান নজরুল পরিচালিত ‘ওস্তাদ-সাগরেদ’ ২. শফিবিক্রমপুরী’র ‘আলাদিন-আলীবাবা-সিন্দাবাদ ‘ ৩. মমতাজ আলী পরিচালিত ‘কুদরত’ ৪. এফ, কবির চৌধুরী পরিচালিত ‘সুলতানা ডাকু’ ৫. দিলীপ বিশ্বাসের ‘অংশীদার’ ৬. দেলোয়ার জাহান ঝন্টু পরিচালিত ‘সেলিম-জাভেদ’ ৭. আমজাদ হোসেন পরিচালিত ‘জন্ম থেকে জ্বলছি’ ৮. অশোক ঘোষের ‘নবাবজাদী’ ৯. কামাল আহমেদ এর ‘পুত্রবধূ ‘ ১০. মাসুদ পারভেজের ‘জীবন নৌকা’। এছাড়া ‘বাধনহারা’, ‘পরদেশী’, ‘দেনা-পাওনা’, ‘মহানগর’, ‘বাদল’, ‘মৌচোর’, ‘যাদুনগর’, ‘সাক্ষী’, ‘বিনি সুতার মালা’, ‘ঝুমকা’, ‘ঘরণী’, ‘জনতা এক্সপ্রেস’, ‘মাসুম’, কলমিলতা, লাল সবুজের পালা, ভালো মানুষ, সুখের সংসার’ ১৯৮১ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত আলোচিত ছবিগুলোর মধ্যে অন্যতম।

‘ওস্তাদ-সাগরেদ’ ছবিতে অভিনয় করেন সোহেলরানা, ওয়াসিম, আলমগীর, শাবানা, সুচরিতা, মাস্টার শামীম, জসিম প্রমুখ। ‘আলাদিন-আলীবাবা-সিন্দাবাদ’ ছবিতে অভিনয় করেন ওয়াসিম, সোহেলরানা, রোজিনা, অঞ্জনা, নূতন, জাভেদ, জসিম, আহমেদ শরীফ প্রমুখ। ‘কুদরত’ ছবিতে ছিলেন শাবানা, ওয়াসিম প্রমুখ। ‘সুলতানা ডাকু’ ছবিতে অভিনয় করেন , জাভেদ, রোজিনা প্রমুখ। ‘অংশীদার’ সিনেমায় অভিনয় করেন রাজ্জাক, রহমান, শাবানা, অঞ্জনা, এ টিএম সামসুজ্জামান প্রমুখ। ‘সেলিম-জাভেদ’ ছবিতে অভিনয় করেন সোহেলরানা, সুচরিতা, জসিম, নূতন, গুই, আদিল, আহমেদ শরীফ প্রমুখ। ‘জন্ম থেকে জ্বলছি’ ছবিতে অভিনয় করেন বুলবুল আহমেদ, ববিতা প্রমুখ। ‘নবাবজাদী’ ছবিতে অভিনয় করেন ববিতা, আলমগীর, মাহমুদ কলি, জসিম প্রমুখ। ‘পুত্রবধূ’ ছবিতে অভিনয় করেন রাজ্জাক, শাবানা, গোলাম মুস্তাফা প্রমুখ। ‘জীবন নৌকা’ ছবিতে অভিনয় করেন সোহেল রানা, সুচরিতা, কামাল পারভেজ, আয়েশা আখতার, একে কোরেশী, মিলন প্রমুখ।

এই বছরে নায়কদের সফলতা:
১৯৮১ সালে ড্যাশিং হিরো সোহেল রানার ছবিগুলো বেশি হিট-সুপারহিট করে। তাঁর অভিনীত ‘ওস্তাদ সাগরেদ’, ‘আলাদিন-আলিবাবা- সিন্দাবাদ’, ‘জাভেদ-সেলিম’ সুপারহিট। এছাড়া ‘জীবন নৌকা’, ‘বাধঁনহারা’, ‘যাদুনগর’, ‘কলমিলতা’ সিনেমাগুলো বেশ আলোচিত ছিল। নায়ক ওয়াসীম অভিনীত ‘ওস্তাদ-সাগরেদ’, ‘আলাদিন-আলিবাবা-সিন্দাবাদ’ ছাড়াও ”, ‘সুলতানা ডাকু’, ‘সাক্ষী’, ‘বিনিসুতার মালা’ ছিল আলোচিত। নায়ক আলমগীরের ‘ওস্তাদ-সাগরেদ’, ‘নবাবজাদী’ ছিল সুপারহিট। এছাড়াও ‘ঝুমকা’, ‘রাজার রাজা’, ‘ভাঙাগড়া’ও আলোচিত ছিল। নায়ক রাজরাজ্জাকের সবচেয়ে বেশি সিনেমা মুক্তি পেলেও সুপারহিট সিনেমার সংখ্যা ছিল কম; তাঁর ‘অংশীদার’ সুপারহিট ছবি। এছাড়াও ‘ঘরণী’, ‘রাজার রাজা’, ‘মহানগর’, ‘ভাঙাগড়া’, ‘দেনাপাওনা’, ‘মৌচোর’ আলোচিত সেই বছরের ছবি। ১৯৮১ সালে বুলবুল আহমেদ, জাফর ইকবাল, মাহমুদ কলি, জাভেদ, জসিম আলোচিত নায়ক ছিলেন। তাদেরও কিছু সিনেমা ব্যবসা সফল হয়।

এই বছরে নায়িকাদের সফলতা:
শাবানা ‘ওস্তাদ-সাগরেদ’, ‘কুদরত’, ‘পুত্রবধূ’, ‘অংশীদারে’র মত সুপারহিট ছবির নায়িকা। সুচরিতা ‘ওস্তাদ-সাগরেদ’, ‘জীবন নৌকা’, ‘সেলিম-জাভেদ’ ছবির নায়িকা। ববিতার উল্লেখযোগ্য ছবি ছিল ‘নবাবজাদী’, ‘জন্ম থেকে জ্বলছি’। রোজিনার আলোচিত ছবি ছিল ‘সুলতানা ডাকু’, ‘আলাদিন-আলিবাবা-সিন্দাবাদ’, ‘বাদল’। এছাড়া এই বছরে অঞ্জনা ও নূতন নায়িকা হিসেবে ভালো করেছেন।

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved ©2020 jubokantho24.com
Design & Developed BY Masum Billah