মঙ্গলবার, ২০ অক্টোবর ২০২০, ১১:১৫ পূর্বাহ্ন

শিরোনামঃ
রাষ্ট্রের পুনর্গঠন : তাত্ত্বিক আলোচনা বনাম বাস্তবতা সৈয়দ শামছুল হুদা ১৮ ভোট কেন্দ্রে কচুয়ার ২ ইউনিয়নের উপ-নির্বাচন কাল উত্তাল পাকিস্তান, ‘ইমরান খানের পদত্যাগ চাই’ প্রেমিকাকে ধর্ষণ করে অন্যকে ফাঁসাতে গিয়ে ফেঁসে গেলো ছাত্রলীগ নেতা মাওলানা সিরাজীর স্মরণে বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস যুক্তরাজ্য শাখার ভার্চুয়াল সভা অনুষ্ঠিত তাইওয়ানে হামলা চালানোর প্রস্তুতি নিচ্ছে চীন ইসরায়েলে অবতরণ করলো আমিরাতের প্রথম ফ্লাইট সিলেটে রায়হান হত্যাকান্ডে প্রধান অভিযুক্ত আকবরকে ধরিয়ে দিলে ১০লক্ষ টাকা পুরস্কার ঘোষণা মেয়র আতিকের পরিবারের ২০ সদস্য করোনায় আক্রান্ত হাতিরঝিলের সেই অজ্ঞাত লাশের রহস্য উদঘাটন হলো যেভাবে

একাত্তর টিভি বয়কট করা সময়ের দাবি

মুফতি জাকারিয়া নুর
সহকারী অধ্যাপক ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় কুষ্টিয়া

ওয়াজে নারী বিদ্বেষ কন্টেন্ট নামক ইস্যু নিয়ে ৭১ টিভি যা করছে তা রীতিমতো ওয়াজ বন্ধের নীল নকশা ও ইসলামের বিরুদ্ধে সুস্পষ্ট বিষোদগার। এ টিভির বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ানো, একে বয়কট করা এখন সময়ের অপরিহার্য দাবী।
আমার কাছে মনে হচ্ছে, শত সহস্র বিজ্ঞ আলেমের ওয়াজ ও তাফসীরের কারণে যেভাবে যুবক ও নারীরা ইসলামের প্রতি আকৃস্ট হচ্ছে, কুরআন সুন্নাহর প্রতি অনুপ্রাণিত হচ্ছে,যে লাখ লাখ ভিউ হচ্ছে, তাতে তারা মনে হয় আতংকিত। ইসলাম পন্থী মনোভাব যেন বৃদ্ধি না পায়, সে জন্যই হয়তো ইসলাম বিদ্বেষী এ অপপ্রচার ও বিষোদগার।
তবে এ কথা ঠিক যে, কিছু আলেম নামধারী মুর্খ বক্তা দর্শক হাসানোর জন্য, মাঠ ধরে রাখার জন্য, ওয়াজের ভিউ বাড়ানোর জন্য এমন উদ্ভট, কু-রুচীপুর্ণ, অশালীন ভাষায় নারীকে নিয়ে এমন কথা বলেন,যা শুনতেও রুচিতে বাধে। এ সকল অর্বাচীন মুর্খদের ওয়াজ শুনে মনে কিছু প্রশ্ন জাগেঃ
★.তারা কি একবারের জন্যও ভাবেনা যে, যে নারীরা ওয়াজ শুনছে তাদের কাছে কেমন লাগছে?
★. যে ওয়াজে নারীকে নিয়ে এতো তুচ্ছতাচ্ছিল্য করছে,ওয়াজ শেষ করে সে যার কাছে ফিরে যাবে সেও তো নারী!
★. নারীর চলনে-বলনে ত্রুটিগুলো কি শালীন ভাষায় বলা যায়না?
★. ওয়াজের মাঠে সকল বয়সী লোক থাকে এ কথা মুর্খ বক্তার কি মাথায় থাকেনা?
★. নারীকে সম্মান দিয়েও শক্ত কথা বলা যায়,তবে সে শিক্ষা টুক হয়তো বক্তা সাহেবের নেই!
তাই আসুন, ইসলামের বিরুদ্ধে বিষোদগার ছড়ানোর কারনে ৭১ টিভিকে বর্জন করি।
সেই সাথে আয়োজক ও শ্রোতাদের প্রতি আমার বিনীত অনুরোধ, ওয়াজের স্টেজে অশালীন দেহ ভংগী ও অংগ ভংগী প্রদর্শন কারী বক্তা, কুরুচিপূর্ণ শব্দ চয়ন কারী বক্তা, সিনেমার গান গাওয়া বক্তা, কুরআন হাদীস ও সাহাবায়ে কেরামের জীবনের বাইরে, ব্যক্তি বিশেষের নামে বে-নামে, উদ্ভট -বানোয়াট,গাজাখুরী কিচ্ছা নির্ভর বক্তা, অন্য মতের বিরুদ্ধে বিষোদগার কারী বক্তা, ওয়াজে গালাগালির বক্তা, অযথা চিৎকার-চেচামেচী করে বিরক্ত উদ্রেককারী বক্তা ও মিথ্যুক বক্তাদেরকেও বয়কট করি।
দলীয় মতবাদে অন্ধ না হয়ে ভাবুন! সচেতন হউন! নতুবা এ ময়দান হাতছাড়া হয়ে যেতে পারে। ক্ষতিগ্রস্ত হবে আলেমসমাজ। ক্ষতিগ্রস্ত হবে ইসলাম। প্রশ্নবিদ্ধ হবে আলেমসমাজ। প্রশ্নবিদ্ধ হবে ইসলাম।

এই পোষ্টটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন।

Design & developed by Masum Billah