মঙ্গলবার, ২০ অক্টোবর ২০২০, ১২:০৩ অপরাহ্ন

শিরোনামঃ
রাষ্ট্রের পুনর্গঠন : তাত্ত্বিক আলোচনা বনাম বাস্তবতা সৈয়দ শামছুল হুদা ১৮ ভোট কেন্দ্রে কচুয়ার ২ ইউনিয়নের উপ-নির্বাচন কাল উত্তাল পাকিস্তান, ‘ইমরান খানের পদত্যাগ চাই’ প্রেমিকাকে ধর্ষণ করে অন্যকে ফাঁসাতে গিয়ে ফেঁসে গেলো ছাত্রলীগ নেতা মাওলানা সিরাজীর স্মরণে বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস যুক্তরাজ্য শাখার ভার্চুয়াল সভা অনুষ্ঠিত তাইওয়ানে হামলা চালানোর প্রস্তুতি নিচ্ছে চীন ইসরায়েলে অবতরণ করলো আমিরাতের প্রথম ফ্লাইট সিলেটে রায়হান হত্যাকান্ডে প্রধান অভিযুক্ত আকবরকে ধরিয়ে দিলে ১০লক্ষ টাকা পুরস্কার ঘোষণা মেয়র আতিকের পরিবারের ২০ সদস্য করোনায় আক্রান্ত হাতিরঝিলের সেই অজ্ঞাত লাশের রহস্য উদঘাটন হলো যেভাবে

আফগানিস্তানে দুই হেলিকপ্টার সংঘর্ষে ৯ জনের মৃত্যু

যুবকণ্ঠ ডেস্ক;

আফগানিস্তানের হেলমান্দ প্রদেশে আহত সেনাদের বহনকারী দুটি সামরিক হেলিকপ্টারের সংঘর্ষে দেশটির অন্তত নয় সেনা সদস্য নিহত হয়েছে। গতকাল বুধবার আফগান প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে দাবি করা হয়েছে, যান্ত্রিক ত্রুটির কবলে পড়ে নাভা জেলায় এই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। ওই অঞ্চলে তালেবান বিরোধী লড়াই চালাচ্ছে আফগান বাহিনী। দেশটির সংবাদমাধ্যম টোলো নিউজের প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।
গত কয়েক দিন ধরে হেলমান্দ প্রদেশে আফগান সরকারি বাহিনী ও তালেবানদের মধ্যে তুমুল লড়াই চলছে। এতে হাজার হাজার মানুষ বাস্তুচ্যুত হয়ে পড়েছে। গত সোমবার সরকারি বাহিনীর হামলায় ৭০ জনের বেশি তালেবান নিহত হওয়ার কথা জানানো হয়েছে। এর মধ্যে তালেবান বিরোধী লড়াইয়ে নিয়োজিত থাকার সময় বুধবার এমআই-১৭ মডেলের হেলিকপ্টার দুটি বিধ্বস্ত হয়। হেলমান্দের রাজধানী লস্করগাহ শহরে কমান্ডোদের পৌঁছে দেয়া এবং আহত সেনাদের ফিরিয়ে নেয়ার কাজ করছিল হেলিকপ্টার দুটি। স্থানীয় প্রাদেশিক গভর্নর ওমর জোয়াক নাওয়া জেলায় হেলিকপ্টার দুর্ঘটনার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তবে এ বিষয়ে বিস্তারিত কিছু জানাননি তিনি।
এদিকে গত সোমবার একটি বিদ্যুৎকেন্দ্রে তালেবান হামলায় হেলমান্দ এবং পার্শ্ববর্তী কান্দাহারের বিস্তীর্ণ অঞ্চল বিদ্যুৎবিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। জায়গায় জায়গায় টেলিযোগাযোগ ব্যবস্থাও বিঘ্নিত হয়েছে।
কাতারে গতমাসে শান্তি আলোচনা শুরুর পর তালেবানদের এটিই সবচেয়ে মারাত্মক হামলা। পাঁচ হাজার পরিবার বাস্তুচ্যুত হয়েছে, অনেকে পাশের এলাকাগুলোর বাড়িতে আশ্রয় নিয়েছে।
একটি পরিবার কেবল পরনের কাপড় পরেই লস্কর গহর নগরীর বাড়ি থেকে পালিয়ে আসার কথা বিবিসি’কে জানিয়েছে। নিরাপদে ঘুমানোর কোনও জায়গা পাবে কিনা তাও তাদের জানা নেই।
অন্যান্যরা বলেছে, তারা অনাহারে মারা যেতে পারে বলে আশঙ্কায় আছে। স্থানীয় হাসপাতালের কর্মীরা জানিয়েছেন, সেখানে বহু আহত মানুষকে ভর্তি করা হয়েছে।
মঙ্গলবার সরকার পক্ষ জানিয়েছে, সংঘর্ষে এ পর্যন্ত ২৩ তালেবান যোদ্ধা নিহত ও ছয়জন আহত হয়েছে। এ ছাড়া নাদ আলি জেলায় বাড়তি পাঁচটি নিরাপত্তা চৌকি তৈরি করেছে সরকারি বাহিনী।
এর আগে গত ২৪ সেপ্টেম্বর বাঘলান এলাকায় যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে দুর্ঘটনায় পড়েছিল একটি আফগান হেলিকপ্টার। এতে প্রাণ হারিয়েছিলেন দুই পাইলট।

এই পোষ্টটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন।

Design & developed by Masum Billah