বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১, ০২:৩৫ পূর্বাহ্ন

আসামের মুসলমানদের উপর দমনপীড়ন বন্ধের আহ্বান ইসলামী ঐক্যজোটের

ভারতের আসাম রাজ্যের দরং জেলায় একটি সুবিশাল শিবমন্দির নির্মাণের লক্ষ্যে হাজার হাজার বাঙালি মুসলমানকে তাদের ভিটেমাটি থেকে উচ্ছেদ ও সেই আশ্রয়চ্যুত মুসলমানদের বিক্ষোভে পুলিশের গুলিতে হতাহতের ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন ইসলামী ঐক্যজোটের চেয়ারম্যান মাওলানা আবুল হাসানাত আমিনী ও মহাসচিব মুফতী ফয়জুল্লাহ।

আজ রোববার গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে নেতৃদ্বয় বলেছেন, সব ধরনের সরকারি নথি ও পরিচয়পত্র থাকা সত্ত্বেও শুধুমাত্র শিবমন্দিরের পরিধি বাড়াতে গত কয়েক মাস ধরেই কট্টরপন্থী হিন্দুত্ববাদী দল বিজেপি সমর্থিত আসামের প্রাদেশিক সরকার সেখানে দফায় দফায় উচ্ছেদ অভিযান চালিয়ে প্রায় আটশত মুসলমান পরিবারের কয়েক হাজার সদস্যকে ভিটেমাটি হারা করছে। সম্প্রতি এর প্রতিবাদে মুসলমানদের বিক্ষোভে পুলিশের গুলিতে দুই জন মুসলমান নিহত ও বহু মানুষ আহত হয়েছে। সামাজিক মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া একটি ভিডিওতে একজন উগ্র হিন্দুকে একজন মুসলমানের লাশের উপর তান্ডব চালাতে দেখা গেছে। আমরা এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারকে অবিলম্বে আসামে মুসলমানদের উপর দমন পীড়ন বন্ধ ও বাস্তচ্যুতদের ভিটেমাটি ফিরিয়ে দেওয়ার আহবান জানাচ্ছি। একই সাথে এই ঘটনায় জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি প্রদানের আহবান জানাচ্ছি।

বিবৃতিতে ইসলামী ঐক্যজোটের শীর্ষ দু’নেতা আরও বলেন, ভারত নিজেকে একটি বৃহৎ গণতান্ত্রিক দেশ হিসেবে জাহির করলেও সেখানে মুসলমানদের উপরই সবচেয়ে বেশি দমন-পীড়ন চালানো হচ্ছে। আসাম, উত্তর প্রদেশ, দিল্লি ও কাশ্মিরে ঠুনকো অজুহাতে মুসলমানদের উপর নির্যাতন ও হত্যাযজ্ঞ চালানো হচ্ছে। ভারত সরকারকে অবিলম্বে এসব শ্রেণী বৈষম্য ও বিভাজন বন্ধ করে ভারতীয় মুসলমানদের মৌলিক অধিকার নিশ্চিত করাসহ নিরাপত্তা ও ভয়হীন পরিবেশ সৃষ্টি করতে হবে। বিবৃতিতে সম্প্রতি ভারতের উত্তর প্রদেশে গ্রেফতারকৃত বিশিষ্ট ইসলাম প্রচারক মাওলানা কলিম সিদ্দিকির মুক্তির দাবি জানানো হয়।

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved ©2020 jubokantho24.com
Website maintained by Masum Billah