শনিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২৩, ০২:১৭ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
আওয়ামী লীগকে রাজপথে দেখে ভীত বিএনপি: তথ্যমন্ত্রী বাংলাদেশে প্রভাব বিস্তারে ৩ পরাশক্তি লড়ছে কুরআন পোড়ানোর প্রতিবাদে সুইডিশ পণ্য বর্জনের আহ্বান হেফাজতের ‘বাবার পরিচয়হীন সন্তানের অভিভাবক মা হবে’ মর্মে রায় দেশের ধর্ম ও সংষ্কৃতির সাথে সাংঘর্ষিক আওয়ামী লীগ মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করে: নানক প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে ছাত্র জমিয়ত ঢাকা মহানগর উত্তরের আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত ৪ দিন ধরে হাসপাতালে ভর্তি পরিকল্পনামন্ত্রী কাল পাঠ্যবইয়ের ভুল নিয়ে শিক্ষামন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন দেশের আকাশে পবিত্র রজব মাসের চাঁদ দেখা গেছে আমরা চাই দেশে সত্যিকার ইসলামের জ্ঞান চর্চা হোক: প্রধানমন্ত্রী

৫ শতাধিক মাদরাসাকে এক কোটি ১৫ লাখ টাকা দিলো বেফাক

যুবকণ্ঠ ডেস্ক:

সিলেটে বেফাকুল মাদারিসিলি আরাবিয়া বাংলাদেশের মুহতামিম সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে সিলেট অঞ্চলের পাঁচ শতাধিক মাদরাসার মুহতামিম বা তাদের প্রতিনিধি অংশগ্রহণ করেন। সম্মেলনে বন্যাকবলিত পাঁচ শতাধিক মাদরাসাকে বেফাক এক কোটি ১৫ লাখ টাকা অনুদান দিয়েছে। রবিবার (১৮ সেপ্টেম্বর) সিলেটের জামিয়া গহরপুরে এই মুহতামিম সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

বেফাকের সহসভাপতি হাফেজ মাওলানা মুসলেহ উদ্দীন গহরপুরীর সভাপতিত্বে ও সিলেট জেলার সাধারণ সম্পাদক মাওলানা আবুল হাসান জকিগঞ্জীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সম্মেলনে বক্তব্য দেন, বেফাকের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাওলানা মাহমুদুল হাসান, ভারপ্রাপ্ত সিনিয়র সহসভাপতি মাওলানা সাজিদুর রহমান, সহসভাপতি মাওলানা আব্দুল হামিদ মধুপুরী, মুফতী ফয়জুল্লাহ, মুফতী মনসুরুল হক, ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মুফতী মাহফুজুল হক, মজলিসে খাসের সদস্য মুফতী নিয়ামতুল্লাহ ফরিদী। এছাড়াও সিলেট, মৌলভীবাজার, হবিগঞ্জ ও সুনামগঞ্জ জেলা বেফাকের দায়িত্বশীলরা বক্তব্য দেন। পরে বেফাকের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাওলানা মাহমুদুল হাসানের দোয়ার মাধ্যমে অনুষ্ঠান সমাপ্ত হয়।

মুহতামিম সম্মেলনে সভাপতির বক্তব্যে হাফিজ মাওলানা মুসলেহ উদ্দিন আহমদ গহরপুরী বলেন, আমাদের আকাবির হযরত বছরের পর বছর যেসব ফেতনার বিরুদ্ধে লড়াই করে গেছেন, যেসব ফেরাকে বাতেলার বিরুদ্ধে লড়াই করে গেছেন, বিশেষ করে মওদুদী ফেতনার বিষয়ে যেভাবে বারবার সতর্ক করেছেন, আজকে আমরা সেগুলোকে ফেতনা বলে মনে করি না। মৌদুদী ফেতনার বিরুদ্ধে আমাদের আকাবীররা যে সংগ্রাম করেছেন সেই সংগ্রাম সঠিক ছিল কিনা সে বিষয়েও এখন প্রশ্ন তোলা হচ্ছে! আজকে আমরা কাদিয়ানী ফেতনার বিরুদ্ধে কথা বলি না। শিয়া ফেতনার বিরুদ্ধে কথা বলি না। আজকে আমাদের মধ্যে তাদের এজেন্ট তৈরি হওয়ার সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে। বর্তমানে ওলামায়ে কেরামের সম্মান নষ্ট করার জন্য নাস্তিক মুরতাদরা একত্রিত হয়েছে। সেই মিছিলে বুঝে না বুঝে আমরাও গা ভাসিয়ে দিচ্ছি। বড় কস্ট লাগে, যখন দেখি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছোট ছোট ছাত্ররা মুরব্বিদের ভুল ধরে, আবার দাবি করে তারা কওমির সন্তান! আমাদেরকে এসব বিষয়ে সতর্ক হতে হবে। বন্যাকালীন সময়েই বেফাক কর্তৃপক্ষ মাদরাসাগুলোর পাশে দাঁড়ানোর উদ্যোগ গ্রহণ করে। তবে কোন মাদরাসা কেমন ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে, তার পরিমাণ কেমন? এসব বিষয়ে খোঁজ খবর নিতে কিছু সময় লেগেছে। আমরা খোঁজ নিয়ে দেখতে পেয়েছি কিছু মাদরাসা তেপায়া নেই, কিছু মাদরাসার আবাসিক ব্যবস্থা ব্যাপকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত, কিছু মাদরাসা আরো নানানভাবে ক্ষতির মুখোমুখী। বেফাক তার সামর্থ অনুযায়ী আজ আপনাদের পাশে দাঁড়িয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করে ছড়িয়ে দিন

All rights reserved © Jubokantho24.com