মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৩, ১২:৩৭ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
আওয়ামী লীগকে রাজপথে দেখে ভীত বিএনপি: তথ্যমন্ত্রী বাংলাদেশে প্রভাব বিস্তারে ৩ পরাশক্তি লড়ছে কুরআন পোড়ানোর প্রতিবাদে সুইডিশ পণ্য বর্জনের আহ্বান হেফাজতের ‘বাবার পরিচয়হীন সন্তানের অভিভাবক মা হবে’ মর্মে রায় দেশের ধর্ম ও সংষ্কৃতির সাথে সাংঘর্ষিক আওয়ামী লীগ মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন করে: নানক প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে ছাত্র জমিয়ত ঢাকা মহানগর উত্তরের আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত ৪ দিন ধরে হাসপাতালে ভর্তি পরিকল্পনামন্ত্রী কাল পাঠ্যবইয়ের ভুল নিয়ে শিক্ষামন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন দেশের আকাশে পবিত্র রজব মাসের চাঁদ দেখা গেছে আমরা চাই দেশে সত্যিকার ইসলামের জ্ঞান চর্চা হোক: প্রধানমন্ত্রী

প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে ছাত্র জমিয়ত ঢাকা মহানগর উত্তরের আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

৩১ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে রাজধানীতে ছাত্র জমিয়ত ঢাকা মহানগর উত্তরের আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মঙ্গলবার (২৪ জানুয়ারি) বিকাল ৩টায় এ আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে আলোচনা করেন জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা নাজমুল হাসান কাসেমী। তিনি বলেন, ছাত্র জমিয়ত বাংলাদেশ একটি প্রশিক্ষনমুলক সংগঠন। তথাকথিত ছাত্র সংগঠনের মতো মাঠে-ময়দানে হুংকার আর আন্দোলন সংগ্রামের সংগঠন ছাত্র জমিয়ত নয়। তবে ইসলাম ও মুসলিম উম্মাহ’র বৃহৎ স্বার্থে এবং বাতিলের মোকাবিলায় মুরুব্বিদের অনুমতিক্রমে ছাত্র জমিয়ত মাঠে-ময়দানে কর্মসূচি গ্রহণ করে।

তিনি আরও বলেন, ছাত্র জমিয়তের প্রতিটি কর্মী, সদস্য এবং সমর্থক নিজেকে আদর্শ নাগরিক হিসেবে গড়ে তুলতে জীবনের সর্বক্ষেত্রে সুন্নতে নববীর অনুসরণ করবে। আগামীদিনে জাতীয় নেতৃত্বের জন্য এখন থেকেই প্রশিক্ষণ নিতে হবে এবং প্রস্তুতি গ্রহণ করতে হবে ছাত্র জমিয়তকে। আল্লাহ তায়ালা আকাবিরদের এই কাফেলার সাথে থেকে নিজেকে একজন যোগ্য, দুরদর্শী, দীনের দায়ী হিসেবে আমাদের সবাইকে কবুল করুন।

ঢাকা মহানগর উত্তর ছাত্র জমিয়তের সভাপতি রফিকুল ইসলাম আইনীর সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন ঢাকা মহানগর উত্তর জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের সহ সভাপতি মুফতী হাবিবুর রহমান কাসেমী, ছাত্র জমিয়ত বাংলাদেশের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মুফতী মুরতাজা হাসান ফয়েজী মাসুম, বিশিষ্ট সমাজসেবক আলহাজ্ব মুহাম্মদ আলী আকবর। প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন ছাত্র জমিয়ত বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ নূর হোসাইন। বিশেষ বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় সহ সাধারণ সম্পাদক ইয়াকুব কামাল।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ঢাকা মহানগর উত্তর জমিয়তের সহ সভাপতি মুফতী হাবিবুর রহমান কাসেমী বলেন, বর্তমান আদর্শহীন ছাত্র রাজনীতির এই সময়ে আদর্শিক সংগঠন ছাত্র জমিয়তের বিকল্প হতে পারে না। ছাত্র জমিয়তের মূল স্লোগানই হচ্ছে ব্যক্তি গঠন। প্রতিষ্ঠার পর থেকে যোগ্য নেতৃত্ব ও যোগ্য ব্যক্তি গঠনে একমাত্র ছাত্র জমিয়তই সফলতার স্বাক্ষর রেখেছে।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে মুফতী মুরতাজা হাসান ফয়েজী মাসুম বলেন, একটা সময় আমিও মুরব্বিদের তত্ত্বাবধানে থেকে ছাত্র জমিয়তের মাধ্যমে নিজেকে গঠন করার চেষ্টা করেছি। ছাত্র জমিয়তের সৌজন্যে আরজাবাদ, বারিধারা, সিলেট এবং সারাদেশের উল্লেখযোগ্য প্রতিষ্ঠানের যারা মুরুব্বী তাদের সাহচার্য পেয়েছি। শুধুমাত্র কিতাব পড়লে আর পড়ালে এই সুযোগটা পাওয়া যায় না। ছাত্র জমিয়তের সুবাদেই আমি অনেকের সাথে চলাফেরা এবং তাদের সোহবত অর্জন করার সুযোগ পেয়েছি। সেই সুযোগটা এখন প্রতিষ্ঠান এবং নিজের জীবন পরিচালনার ক্ষেত্রে অনেক বড় সহায়ক।

তিনি আরও বলেন, আমি মনে করি- আপনারাও যদি মনোযোগের সহিত পড়ালেখা ঠিক রেখে ওইভাবে সংগঠন করতে পারেন এবং সংগঠনের সাথে যুক্ত থাকতে পারেন তাহলে এর অনেক উপকার নিজেতো পাবেনই, উম্মাহও পাবে, ইনশাআল্লাহ।

প্রধান বক্তার বক্তব্যে ছাত্র জমিয়তের কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ নূর হোসাইন বলেন, দেশের শিক্ষাব্যবস্থা আজ গভীর সংকটে৷ সুদুরপ্রসারি পরিকল্পনা নিয়ে এদেশের শিক্ষার্থীদের ঈমান-আকিদা হরণের চেষ্টা চলছে৷ বিশেষত নতুন পাঠ্যপুস্তকে কোমলমতি শিক্ষার্থীদের শিক্ষার নামে নাস্তিকতা ও শিরকের পথে ঠেলে দেয়া হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, কাদের ইন্ধনে পাঠ্যবইয়ে সাম্প্রদায়িক ঘৃণা ও ইসলাম বিদ্বেষ ছাড়ানো হয়েছে তা অবশ্যই সরকারকে খতিয়ে দেখতে হবে। অনতিবিলম্বে বিতর্কিত সিলেবাস পরিবর্তন করে নতুন সিলেবাস প্রনয়ণ করতে হবে। ধর্মীয় মূল্যবোধের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ বিষয়গুলো বিজ্ঞ আলেমদের সাথে পরামর্শ করে প্রনয়ণ করতে হবে এবং সিলেবাস প্রনয়ণ কমিটিতে বিশেষজ্ঞ আলেমদের অন্তর্ভুক্ত করারও আহবান জানান তিনি।

সভাপতির বক্তব্যে ছাত্র জমিয়ত বাংলাদেশ ঢাকা মহানগর উত্তরের সভাপতি রফিকুল ইসলাম আইনী ছাত্র জমিয়তের গৌরবোজ্জ্বল রাজনীতির ইতিহাস তুলে ধরেন। এবং ভবিষ্যতেও যেন ছাত্র জমিয়ত বাংলাদেশ সুনাম, সুখ্যাতির সাথে সমাজে বলিষ্ঠ ভুমিকা রাখতে পারে এই আশা ব্যাক্ত করেন।

ছাত্র জমিয়ত বাংলাদেশ ঢাকা মহানগর উত্তরের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক দ্বীন মুহাম্মদ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক আব্দুর রহমানের যৌথ সঞ্চালনায় আরো উপস্থিত ছিলেন, জমিয়ত নেতা মুফতী শাব্বির আহমেদ কাসেমী, মাওলানা মুস্তাফিজুর রহমান কাসেমী, মুফতী ইদ্রিস কাসেমী, যুব জমিয়ত নেতা মুফতী সাদ কাসেমী, মুফতী হাসান আরিফ, মুফতী আহমাদুল্লাহ আসেম, মাওলানা আতাউর রহমান, ছাত্র জমিয়ত ঢাকা মহানগর উত্তরের সহ সভাপতি ফজলে এলাহি নোমান, সাংগঠনিক সম্পাদক আশরাফ আলি, অর্থ সম্পাদক আমিন হোসাইন, পাঠাগার সম্পাদক মোবারক হোসাইন, ইকবাল হোসাইন প্রমুখ।

নিউজটি শেয়ার করে ছড়িয়ে দিন

All rights reserved © Jubokantho24.com